বুধবার, জুন ২৯, ২০২২

চাঁপাইনবাবগঞ্জে ২৫ বছর পর এমপি হারুনের আধিপত্যের অবসান

চাঁপাইনবাবগঞ্জে প্রায় ২৫ বছর পর বিএনপির নেতা হারুনুর রশিদের আধিপত্যের অবসান হলো।

গত বুধবার জেলা বিএনপির কমিটি ঘোষণার মধ্য দিয়ে হারুন যুগের অবসান ঘটেছে।

’৯০-এর দশকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের নেতা হারুনুর রশিদকে চাঁপাইনবাবগঞ্জের রাজনীতিতে নিয়ে আসেন জেলা বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি প্রয়াত অ্যাডভোকেট সুলতানুল ইসলাম মনি।

সে সময় চাঁপাইনবাবগঞ্জের মানুষ তাঁকে স্বাগত জানায়। ১৯৯৬ সালে তিনি সদর আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

সেই থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ বিএনপিতে হারুন যুগের সূচনা হয়। টানা ২৫ বছর পর হারুন যুগের অবসানে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন বিএনপির ত্যাগী নেতারা।

জানা যায়, হারুনুর রশিদ গত ২৫ বছর চাঁপাইনবাবগঞ্জে একক আধিপত্যে দল পরিচালনা করেছেন। সংসদ সদস্য, পৌর মেয়র, দলের সভাপতি-সম্পাদক যখন যা চেয়েছেন সেটাই আদায় করেছেন হারুন।

নিজে পদ নিয়েছেন এবং অন্যকে পদ দিয়েছেন। এক কথায়, দলে হারুনুর রশিদ ছিলেন অপ্রতিরোধ্য নেতা।

কিন্তু হঠাৎ করেই কমিটি গঠনের ঘোষণায় হারুন ও অনুসারীর আধিপত্যে ধস নেমেছে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর আসনের সাংসদ বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব হারুনুর রশিদের অনুসারীদের বাদ দিয়ে গত বুধবার জেলা বিএনপির নতুন আহ্বায়ক কমিটি ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় কমিটি।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক গোলাম জাকারিয়াকে আহ্বায়ক এবং রফিকুল ইসলামকে (চাইনিজ রফিক) সদস্যসচিব করে তিন সদস্যবিশিষ্ট আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়েছে।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভি স্বাক্ষরিত ওই কমিটির তালিকা বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রকাশ করা হয়।

কমিটিতে যুগ্ম-আহ্বায়ক করা হয়েছে জেলা বিএনপির সদ্য সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম টিপুকে।

দলীয় সূত্র জানায়, ২০১৭ সালে অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম টিপুকে সভাপতি ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের সাংসদ মো. আমিনুল ইসলামকে সাধারণ সম্পাদক করে একটি পূর্ণাঙ্গ কমিটি করা হয়।

নতুন কমিটি গঠনের পরই এমপি হারুনের অনুসারী ৭২ জন পদত্যাগ করেন। ফলে নিষ্প্রাণ হয়ে যায় জেলা বিএনপি।

বিএনপির নেতারা বলছেন, দীর্ঘ আড়াই দশক পর সদর আসনের সাংসদ বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব হারুনুর রশিদের আধিপত্যের অবসান ঘটছে।

আবারও নিবেদিতপ্রাণ বিএনপি নেতাদের হাতে এসেছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা বিএনপির নেতৃত্ব।

এরা প্রয়াত বিএনপি নেতা জেলা বিএনপির প্রতিষ্ঠাকালীন সভাপতি অ্যাডভোকেট সুলতানুল ইসলাম মনির অনুসারী।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা বিএনপির নতুন সদস্যসচিব রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘কেন্দ্র যা করেছে তা বুঝে-শুনেই করেছে।

এখনই এ নিয়ে কোনো মন্তব্য করতে চাই না। যে দায়িত্ব পেয়েছি তা সঠিকভাবে পালন করতে চাই।’

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা বিএনপির নতুন আহ্বায়ক গোলাম জাকারিয়া বলেন, ‘চাঁপাইনবাবগঞ্জে একটা পরিবর্তন চাইছিলেন বিএনপির সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা।

কেন্দ্র সেটাই করেছে। আমরা এর জন্য তাঁদের ধন্যবাদ জানাই।’

তিনি আরও বলেন, ‘প্রয়াত বিএনপি নেতা মনি উকিলের নেতৃত্বে চাঁপাইনবাবগঞ্জে বিএনপি প্রতিষ্ঠা করতে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছিলাম।

দলের ক্রান্তিকালে আবারও দায়িত্ব দিয়েছে। আমরা সে দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করতে চাই।’

আপনার জন্য নির্বাচিত খবর

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here

আরও পড়ুন

যুক্ত হউন

1,000FansLike
1,000FollowersFollow
100,000SubscribersSubscribe

সর্বশেষ খবর