হাফ ভাড়া নিতে রাজি হওয়ায় ছাড়া পেল ৫০ বাস

শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে হাফ ভাড়া নিতে রাজি হওয়ায় রাজধানীর প্রগতি সরণিতে চলাচলকারী রাইদা পরিবহনের ৫০টি বাস ছেড়ে দিয়েছে শিক্ষার্থীরা।

এর আগে একটি বাসে অর্ধেক ভাড়া দিতে চাওয়ায় এক শিক্ষার্থীকে ঘাড় ধাক্কা দিয়ে নামিয়ে দেয় বাসটির চালকের সহকারী।

সোমবার দুপুরে রামপুরা এলাকায় সংঘটিত এ ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে পরিবহনটির প্রায় ৫০টি বাস আটকে রাখেন শিক্ষার্থীরা।

পরে পুলিশের উপস্থিতিতে দীর্ঘ আলোচনা শেষে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অর্ধেক ভাড়া নিতে রাজি হয় রাইদা পরিবহনের মালিকপক্ষ।

শিক্ষার্থীরা পরিচয়পত্র দেখালে তাদের কাছ থেকে অর্ধেক ভাড়া নেওয়ার বিষয়টি রাইদা কর্তৃপক্ষ মেনে নিয়েছে বলে জানিয়েছেন রামপুরা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সাইফুল ইসলাম।

সোমবার বিকালে এ তথ্য নিশ্চিত করে তিনি বলেন, সোমবার দুপুর ১টা ২০ মিনিটের দিকে রাজধানীর রামপুরায় বিটিভি ভবনের সামনে রাইদা পরিবহনের একটি বাস থেকে এক শিক্ষার্থীকে ঘাড় ধাক্কা দিয়ে নামানোর অভিযোগ ওঠে।

এ ঘটনার পর পরিবহনটির প্রায় ৫০টি বাস রাস্তার পাশে আটকে রাখেন শিক্ষার্থীরা।

তখন ওই সড়কে প্রায় এক ঘণ্টা যান চলাচল বন্ধ থাকে। পরে পুলিশ এসে শিক্ষার্থীদের বুঝিয়ে সড়ক থেকে সরিয়ে নিলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

হেনস্তার শিকার শিক্ষার্থী ঢাকা ইম্পেরিয়াল কলেজের ছাত্র। ঘটনার প্রতিবাদে রাস্তায় নামেন মূলত ওই কলেজেরই শিক্ষার্থীরা।

তিনি জানান, ঢাকা শহরের যেকোনো প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা তাদের পরিচয়পত্র দেখালে হাফ ভাড়া নিতে হবে- সমঝোতা বৈঠকে এমন দাবি করে শিক্ষার্থীরা।

এছাড়া প্রতিটি বাসে নারীদের জন্য যে ৯টি আসন সংরক্ষিত থাকে সেখানে কোনোভাবেই পুরুষ বসতে পারবে না।

শিক্ষার্থীদের এসব দাবি রাইদা পরিবহন কর্তৃপক্ষ মেনে নিয়েছে।

সমঝোতা শেষে এই রাস্তায় আটকে থাকা বাসগুলো ছেড়ে দেওয়া হয়।

আপনার জন্য নির্বাচিত খবর

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here

আরও পড়ুন

যুক্ত হউন

1,000FansLike
1,000FollowersFollow
100,000SubscribersSubscribe

সর্বশেষ খবর