স্বামীর ফোন ঘাঁটায় স্ত্রীর তিন মাসের জেল!

স্বামীর ফোন অজ্ঞাতসারে প্রায়ই তল্লাশী চালাতেন স্ত্রী। এর পরিণাম ভালো হলো না। স্বামীর গোপন তথ্য ফাঁস করে দেন সেই স্ত্রী। এদিকে একপর্যায়ে মামলা করেন স্বামী। ফলাফল হলো সেই নারীর তিন মাসের জেল দিলো আদালত।

অভিযুক্ত নারীর দাবি, স্বামীই তাকে পাসওয়ার্ড দিয়েছিলেন। কেননা এর আগে বিভিন্ন নারীদের সঙ্গে তাকে কথা বলার সময় ধরা খেয়েছেন তিনি।

স্থানীয় পত্রিকা ইমারাত আল ইয়াওম’কে আইনজীবী রায়েদ আল আওরাকি ও মোহাম্মদ জাদ আল মাওলা জানান, অনুমতি ছাড়া যেকোনো ব্যক্তির মোবাইল ফোনের তথ্য দেখা ও খোঁজা দেশটিতে বেআইনি। এমনকি বাবা-মা ও বিবাহিত যুগলের ক্ষেত্রেও বিষয়টি প্রযোজ্য।

তবে এই মামলা করে কিছুটা অনুতপ্ত স্বামী। টুইটারে তিনি লিখেছেন-  ‘যদি স্ত্রী স্বামীর কর্মকাণ্ডে সন্দেহপ্রবণ না হতেন, তাহলে নিশ্চয়ই ফোন ঘেঁটে দেখতেন না। নিজের স্ত্রীকে জেলে পাঠানো কি তার জন্য লজ্জাজনক নয়?

তবে আইন আইনই। এই নারীকে তিন মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। গত আগস্ট মাসে ইউএইর প্রেসিডেন্ট শেখ খলিফা এই নতুন সাইবার অপরাধ আইন ইস্যু করেন। এই আইনে দোষী ব্যক্তির ২৫ বছরের জেল পর্যন্ত হতে পারে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Comments

comments