বিরতিটা কীভাবে কাজে লাগাবেন সাকিব?

বিরতিটা কীভাবে কাজে লাগাবেন সাকিব?

সাকিব আল হাসানকে ছাড়াই দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারকে ছাড়া প্রোটিয়াদের বিপক্ষে বাংলাদেশ যে মানসিকভাবে পিছিয়ে থাকবে, কাল সেটি স্বীকার করে নিয়েছেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন। তবে সাকিব মনে করেন, তাঁর অনুপস্থিতি খুব একটা প্রভাব ফেলবে না দলে। তাঁর কথা, ‘দুনিয়াতে কোনো কিছুই কারও জন্য অপেক্ষা করে না।’

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে কেমন করতে পারে বাংলাদেশ? সাকিবের ভবিষ্যদ্বাণী যে ফলে যায়, সেটি দেখা গিয়েছিল ২০১৫ সালের এপ্রিলে পাকিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে। সিরিজটা বাংলাদেশ জিততে পারে, এমনই ইঙ্গিত দিয়েছিলেন বাঁহাতি অলরাউন্ডার। সেটিই সত্যি হয়েছিল শেষ পর্যন্ত। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সাকিবের ভবিষ্যদ্বাণী, ‘ফল বলা কঠিন। ভবিষ্যদ্বাণী করাও কঠিন ব্যাপার। টেস্ট সিরিজ অবশ্যই কঠিন হবে। ওয়ানডেতে আমাদের খুব ভালো সম্ভাবনা আছে। টি-টোয়েন্টি নিয়ে বলা কঠিন। ওই কন্ডিশনে আমরা ৬-৭ বছরের বেশি সময় খেলিনি। স্বাভাবিকভাবেই আমাদের জন্য অনেক চ্যালেঞ্জিং হবে। ওয়ানডের তুলনায় টি-টোয়েন্টি ও টেস্ট বেশি কঠিন হবে।’
টেস্টে বাংলাদেশ কেমন করে সেটি সাকিব হয়তো টিভিতেই দেখবেন কিংবা নানা মাধ্যমে দলের খোঁজখবর নেবেন। তবে ব্যক্তিগতভাবে ক্রিকেট থেকে আপাতত দূরেই থাকতে চান তিনি। পাওয়া ছুটিটা উপভোগ করতে চান সাকিব, ‘পরিবারের সঙ্গে সময় দেওয়া, …ঘুরতে-টুরতে যাওয়া, পরিবার-বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা দেওয়া…। মাঝেমধ্যে ক্রিকেট থেকে বাইরে থাকা খুবই জরুরি। চেষ্টা থাকবে যত বেশি সম্ভব ক্রিকেটের বাইরে থাকতে। যেহেতু সামনে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি আছে, সেটির প্রস্তুতিও শুরু করব। কিন্তু সেটা কয়েক দিন পর।’
সুত্রঃ প্রথম আলো

Sharing is caring!

Comments

comments

262 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *