‘তারা মনে করে কোমরটাই সবচেয়ে আকর্ষণীয় অঙ্গ’

নায়িকাদের উপস্থাপন করা হয় যেভাবে, তা কি ঠিক? এ বিতর্কই এখন চলছে। দক্ষিণ ভারতের ছবিগুলোতে নারীদের উপস্থাপন করার চল নিয়ে কিছুদিন আগে সোচ্চার হয়েছিলেন অভিনেত্রী তাপসী পান্নু। এবার তাঁর সঙ্গে সুর মেলালেন ‘বরফি’ তারকা ইলিয়েনা ডি ক্রুজ। বলিউডের এ অভিনেত্রীর মতে, পর্দায় মেয়েদের অশালীনভাবে উপস্থাপনের প্রথাটা শুধু ভারতের দক্ষিণী ছবিতে নয়, সব জায়গাতেই এমন হচ্ছে।

দক্ষিণ ভারতের ছবি ‘ঝুমান্ডি নদম’ দিয়ে চিত্রজগতে অভিষেক তাপসীর। এ ছবির একটি শটে তাঁর নাভিতে নারকেল ছুড়ে মারার শট নেওয়া হয়েছিল। উঠতি ক্যারিয়ারের স্বার্থে তখন মুখ বুজে সহ্য করলেও পরে তা নিয়ে পরিচালক রাঘবেন্দ্র রাওয়ের সমালোচনা করেছিলেন। দক্ষিণী ছবিতে প্রচুর কাজ করা ইলিয়েনার মতে, সমস্যা আসলে সবখানেই, ‘শুধু দক্ষিণ ভারতের সিনেমার দিকে আঙুল তুলে বলতে চাই না যে এটা শুধু ওখানেই হচ্ছে। বলিউডেও অনেক ছবিতে মেয়েদের পণ্য হিসেবে দেখানো হয়। তবে আপনি তা হতে চান কি না, সে সিদ্ধান্তটা দিন শেষে আপনার।’
২০০৬ সালে ‘দেভাদাসু’ দিয়ে দক্ষিণী সিনেমায় অভিষেক ইলিয়েনার। তাপসীর মতো ক্যারিয়ারের শুরুতে ইলিয়েনারও সমস্যা হয়েছে। ২০০৬ সালে দক্ষিণী সিনেমায় অভিষেক ইলিয়েনার।‘দেভদাসু’ নামের সেই প্রথম ছবির একটি শুটিং দৃশ্য প্রসঙ্গে তাঁর ভাষ্য, ‘তাঁরা বেশ বড় একটা শামুক ছুড়ে মেরেছিল আমার পেটে। ব্যাপারটা আমি বুঝতে পারিনি। পরিচালককে জিজ্ঞেস করেছিলাম, আমাকে এটা ছুড়ে মারলেন কেন? তিনি বলেছিলেন, দেখতে ভালো লাগে। শামুকটার ওজনও ছিল বেশ।’
আরেকটি অভিজ্ঞতার কথা বলেছেন ইলিয়েনা, ‘আরও একটা শট ছিল, আমার কোমরের চারদিকে ফুল রেখে। আমি জিজ্ঞেস করেছিলাম, কেন আমরা কোমরের শট নেওয়া হলো। পরিচালক বললেন, এটা দেখতে ভালো দেখায়। নারীদের সৌন্দর্যের ব্যাপারে এটাই হলো সেখানকার দৃষ্টিভঙ্গি। তারা মনে করে, কোমরটাই সবচেয়ে আকর্ষণীয় অঙ্গ।’
সূত্র: ডেকান ক্রনিকল।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *